সোমবার, ২৯ নভেম্বর ২০২১, ০১:৫১ অপরাহ্ন

অক্সফোর্ড-অ্যাস্ট্রাজেনেকার টিকা নিরাপদ-কার্যকর- যুক্তরাজ্য

Reporter Name
  • আপডেট করা হয়েছে শনিবার, ১৩ মার্চ, ২০২১
  • ১২২ বার পড়া হয়েছে

গত বছরের ডিসেম্বরে যুক্তরাজ্য প্রথম অক্সফোর্ড-অ্যাস্ট্রাজেনেকার টিকা ব্যবহারের অনুমোদন দেয়

গত বছরের ডিসেম্বরে যুক্তরাজ্য প্রথম অক্সফোর্ড-অ্যাস্ট্রাজেনেকার টিকা ব্যবহারের অনুমোদন দেয় ছবি: এএফপি

অক্সফোর্ড-অ্যাস্ট্রাজেনেকার করোনাভাইরাসের টিকা নিরাপদ ও কার্যকর বলে জানিয়েছে যুক্তরাজ্য সরকার। কানাডাও বলছে, এই টিকা নিরাপদ। বার্তা সংস্থা এএফপি ও রয়টার্সের প্রতিবেদনে এই তথ্য জানানো হয়।

ডেনমার্ক, নরওয়ে, আইসল্যান্ড, থাইল্যান্ড গতকাল বৃহস্পতিবার সাময়িকভাবে অক্সফোর্ড-অ্যাস্ট্রাজেনেকার করোনার টিকার ব্যবহার স্থগিত করে। তারপরই এই টিকার নিরাপত্তার পক্ষে যুক্তরাজ্য ও কানাডা থেকে বক্তব্য এল।

যুক্তরাজ্যের প্রধানমন্ত্রী বরিস জনসনের মুখপাত্র গতকাল সাংবাদিকদের বলেন, ‘আমরা এই ব্যাপারটিতে পরিষ্কার যে এই টিকা নিরাপদ ও কার্যকর।’

লোকজনের আত্মবিশ্বাসের সঙ্গে অক্সফোর্ড-অ্যাস্ট্রাজেনেকার টিকা নেওয়া উচিত বলে মন্তব্য করেন বরিস জনসনের মুখপাত্র।

যুক্তরাজ্য সরকার অক্সফোর্ড-অ্যাস্ট্রাজেনেকার টিকাদান চালিয়ে যাবে বলেও জানানো হয়েছে।

অ্যাস্ট্রাজেনেকা বলেছে, ক্লিনিক্যাল ট্রায়ালে এই টিকার নিরাপত্তার দিকটি ব্যাপকভাবে পরীক্ষা-নিরীক্ষা করা হয়।

কোনো নতুন ওষুধ অনুমোদনের ক্ষেত্রে তার কার্যকারিতা ও নিরাপত্তার মান কঠোরভাবে নিয়ন্ত্রক সংস্থাগুলো অনুসরণ করে বলে জানায় অ্যাস্ট্রাজেনেকা।

যুক্তরাজ্যের ওষুধ নিয়ন্ত্রক সংস্থা মেডিসিনস অ্যান্ড হেলথকেয়ার প্রোডাক্টস রেগুলেটরি এজেন্সি (এমএইচআরএ) বলেছে, অক্সফোর্ড-অ্যাস্ট্রাজেনেকার টিকা সমস্যা তৈরি করেছে বলে কোনো প্রমাণ পাওয়া যায়নি। লোকজনের এই টিকা নেওয়া উচিত।

অক্সফোর্ড-অ্যাস্ট্রাজেনেকার টিকা নিয়ে কয়েকজনের শরীরে রক্ত জমাট বেঁধেছে—এমন প্রতিবেদন আসার পর তার ব্যবহার গতকাল সাময়িকভাবে স্থগিত করে ডেনমার্ক, নরওয়ে, আইসল্যান্ড। তার আগে এই টিকার ব্যবহার বন্ধ করে অস্ট্রিয়া।

এমএইচআরএ বলেছে, প্রাকৃতিকভাবেই মানুষের শরীরে রক্ত জমাট বাঁধতে পারে। এটি অস্বাভাবিক নয়।

যুক্তরাজ্যে ১ কোটি ১০ লাখের বেশি মানুষ অক্সফোর্ড-অ্যাস্ট্রাজেনেকার টিকা নিয়েছে বলে জানিয়েছে এমএইচআরএ।

ইউরোপীয় ওষুধ নিয়ন্ত্রক সংস্থা এক বিবৃতিতে বলেছে, রক্ত জমাট বাঁধার সঙ্গে অক্সফোর্ড-অ্যাস্ট্রাজেনেকার টিকার যোগসূত্র থাকার কোনো ইঙ্গিত পাওয়া যায়নি।

কানাডার স্বাস্থ্য বিভাগ গতকাল এক বিবৃতিতে জানিয়েছে, অক্সফোর্ড-অ্যাস্ট্রাজেনেকার টিকা নিরাপদ। তারা কানাডাবাসীকে এই টিকার সুবিধার ব্যাপারে আশ্বস্ত করতে চায়। এই টিকায় এখন পর্যন্ত কোনো বিরূপ প্রতিক্রিয়ার ঘটনা নেই।

কানাডা গত সপ্তাহে ভারতের সেরাম ইনস্টিটিউট থেকে ৫ লাখ ডোজ অক্সফোর্ড-অ্যাস্ট্রাজেনেকার টিকা পেয়েছে। আগামী মে মাস নাগাদ তারা আরও ১৫ লাখ অক্সফোর্ড-অ্যাস্ট্রাজেনেকার টিকা পাওয়ার আশা করছে।

গত বছরের ডিসেম্বরে যুক্তরাজ্য প্রথম অক্সফোর্ড-অ্যাস্ট্রাজেনেকার টিকা ব্যবহারের অনুমোদন দেয়।

 

সংবাদটি শেয়ার করুন

কমেন্ট করুন

আরো সংবাদ পড়ুন
themesba-lates1749691102