সোমবার, ১৭ মে ২০২১, ০৯:২৭ পূর্বাহ্ন

কেউ যদি তরীকা মশক করে, তাহলে সে আদববান হবে -শাহ্ আবু নছর নেছারুদ্দীন আহমদ হুসাইন।

Reporter Name
  • আপডেট করা হয়েছে রবিবার, ২ ফেব্রুয়ারী, ২০২০
  • ৪২৫ বার পড়া হয়েছে

ছারছীনা থেকে মোঃ আবদুর রহমানঃ
ছারছীনা শরীফের হযরত পীর ছাহেব কেবলার বড় ছাহেবজাদা শাহ্ আবু নছর নেছারুদ্দীন আহমদ হুসাইন বলেন- তরীকা মানুষকে আদব শিক্ষা দেয়। তরীকা বেয়াদবী শিক্ষা দেয় না । প্রকৃত পক্ষে কেউ যদি তরীকা মশক করে, তাহলে সে আদববান হবে। সে নামাজী, রোজাদার, শরীয়াতের যাবতীয় আমল সম্পাদনকারী হবে, সে হালাল খানা খাবে। তার মধ্যে যাবতীয় বদগুন তথা হিংসা, হাসাদ, রিয়া থাকবে না। সবচেয়ে বড় কথা হলো। তার আদবের পরিমান বেড়ে যাবে যেমনিভাবে একটি গাছে যখন ফল হয়, তখন তা নিচের দিকে ঝুকে পড়ে। তদ্রুপ ভাবে আদববান লোকের অবস্থা তেমন হবে। ছারছীনা দরবার শুধুমাত্র মুরীদ বাড়ানোর জন্যই কাজ করে না বরং একটি মানুষ যাতে করে আকীদা, আমল, আখলাক, শরিয়াত ও তরীকতের সর্বগুণে গুনান্বিত হতে পারে সেজন্যে কাজ করে। শুধুমাত্র নাম প্রকাশ ও জন সংখ্যার আধিক্যের ছবকে মেতে থাকে না, যদি এমনটি হয় তাহলে এ দরবার যেন ধ্বংস হয়ে যায়।
গতকাল বাদ মাগরীব ছারছীনা দরবার শরীফের মরহুম পীর ছাহেব কেবলাদ্বয়ের ঈছালে ছওয়াব মাহফিলের শেষদিন তিনি একথা বলেন।

সংবাদটি শেয়ার করুন

কমেন্ট করুন

আরো সংবাদ পড়ুন
themesba-lates1749691102