বুধবার, ২৮ জুলাই ২০২১, ০৯:০৭ পূর্বাহ্ন

পেকুয়ায় বিকাশ এজেন্টের সাড়ে ৪৬ লাখ টাকা লুটের ঘটনায় ২ জন গ্রেফতার

সৈকত
  • আপডেট করা হয়েছে রবিবার, ১১ জুলাই, ২০২১
  • ১৭ বার পড়া হয়েছে

পেকুয়ায় বিকাশ এজেন্টের সাড়ে ৪৬ লাখ টাকা লুটের ঘটনায় সম্পৃক্ত থাকার অভিযোগে চকরিয়া থেকে ২ জনকে গ্রেফতার করেছে র‌্যাপিড এ্যাকশন ব্যাটালিয়ন (র‌্যাব)।

শনিবার মধ্যরাতে চকরিয়ার সিকদার পাড়া এলাকায় এ অভিযান চালানো হয়।

গ্রেফতারকৃতরা হলেন, চকরিয়ার ব্রাহ্মনপাড়া এলাকার মৃত আব্দুল শুকুরের ছেলে মো. সাইফুল (৩১) ও চট্টগ্রামের বাঁশখালীর নাপুড়ার রুস্তমকাটা এলাকার মোস্তাক আহম্মেদের ছেলে মো. কফিল উদ্দিন (২২)

র‌্যাব-১৫ এর সহকারী পরিচালক (মিডিয়া এন্ড অপারেশনস্) আবদুল্লাহ মোহাম্মদ শেখ সাদী জানান, র‌্যাব অভিযোগের ভিত্তিতে জানতে পারে গত ৭ জুলাই পেকুয়ার আলহাজ্ব কবির আহমদ চৌধুরী বাজারের ইসলামী ব্যাংক ভবনের তৃতীয় তলায় অবস্থিত বিকাশ ডিস্ট্রিবিউশন অফিস থেকে নগদ ৪৬ লাখ ৫০ হাজার টাকা চুরি হয়। ওই অভিযোগের ভিত্তিতে র‌্যাবের একটি চৌকস দল অভিযানে নামে। এক পর্যায়ে শনিবার রাতে র‌্যাব সদস্যরা জানতে পারে ঘটনার সাথে জড়িতরা সিকদারপাড়ার আনোয়ার মিয়ার বসতবাড়িতে অবস্থান করছে। এর প্রেক্ষিতে রাত সাড়ে ১১ টার দিকে র‌্যাবের একটি দল সেখানে অভিযান চালায়। এসময় পালানোর চেষ্টাকালে গ্রেফতার করা হয় ২ জনকে। পরে তাদের দেওয়া তথ্যমতে, বসতঘরের মাটির নিচে বস্তা মোড়ানো অবস্থায় ১৮ লাখ টাকা উদ্ধার করা হয়।

আবদুল্লাহ মোহাম্মদ শেখ সাদী বলেন, গ্রেফতারকৃতরা প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে জানিয়েছে, বিকাশ ডিস্ট্রিবিউশন অফিসে নিরাপত্তার দায়িত্বে নিয়োজিতরা যখন রাতের খাবার খেতে হোটেলে যান সেই সুযোগে রাত ১০ টার দিকে তারা মাথায় হেলমেট পড়ে প্রথমে বিকাশ ডিস্ট্রিবিউশন অফিসের গ্রিলের ভেতর প্রবেশ করে বিদ্যুতের মেইন সুইচ বন্ধ করে দেন এবং ভল্ট ভেঙে ভল্টে রক্ষিত ৪৬ লক্ষ ৫০ হাজার টাকা চুরি করে কৌশলে পালিয়ে যান।

তিনি জানান, গ্রেফতার দুই জনকে পেকুয়া থানায় হস্তান্তর করা হয়েছে। পলাতক আসামীদের গ্রেফতার এবং বাকী টাকা উদ্ধারের চেষ্টা অব্যাহত আছে।

সংবাদটি শেয়ার করুন

কমেন্ট করুন

আরো সংবাদ পড়ুন
themesba-lates1749691102